• আজঃ বৃহস্পতিবার, ১লা আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১৬ই সেপ্টেম্বর, ২০২১ ইং

সোনাইমুড়ীতে আধিপাত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে বসতবাড়িতে হামলা

নোয়াখালী প্রতিনিধিঃ


নোয়াখালীর সোনাইমুড়ীতে বসতবাড়ীতে আধিপাত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে কিশোর গ্যাংয়ের হামলা চালিয়ে মহিলাসহ ১০ জনকে পিটিয়ে ও ১২টি বসতঘর কুপিয়ে তছনছ করার অভিযোগ পাওয়া গেছে। রবিবার দিবাগত রাত ১ টার দিকে উপজেলার চাষির হাঁট ইউনিয়নের কৈয়া গ্রামে কালাম ড্রাইভারের বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে।

বিগত ৩ মাস পূর্বে কৈয়া পশ্চিম পাড়ার জাহাঙ্গীরের ছেলে শুভ (১৮) এর সাথে পূর্ব পাড়ার রাজু, রাব্বির সাথে আধিপাত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে কথা কাটাকাটি হয়। এতে তারা ক্ষিপ্ত হয়ে রাজু ও রাব্বির নেতৃত্বে ৫-৬ জন মিলে পূর্ব কাঁঠালী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের মাঠে শুভকে মারধর করে।
এ নিয়ে রবিবার দিবাগত গভীর রাত্রে পশ্চিম পাড়া কালাম ড্রাইভারের বাড়িতে পূর্বপাড়ার স্থানীয় ইউপি সদস্য ও কিশোর গ্যাংয়ের প্রধানের আবুল হাশেম মেম্বরের ছেলে জালাল আহমেদ ও কিশোর গ্যাংয়ের সেকেন্ড ইন কমান্ড এর সদস্য নাসির উদ্দীন বাবুর নেতৃত্বে ১৫-২০ জন দেশীয় অস্ত্র-স্বস্ত্র নিয়ে হামলা চালায়। এসময় কালাম ড্রাইভারের বাড়ির মনির হোসেন (২৫), শহিদুল্লাহ (২৬), মহন (২৪), মনোয়ারা বেগম (৪৫) শাহিদা বেগম (৫০), রুবিনা আক্তার (২৭) সহ ১০ জনকে পিটিয়ে আহত করে। আহতদের মধ্যে সোনাইমুড়ী বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। ঐ গ্রামের মনির আহম্মদ ও বাবুলের ঘর সহ ১২টি ঘর কুপিয়ে তছনছ করে কিশোর গ্যাংরা। রাত্রেই খবর পেয়ে সোনাইমুড়ী থানার এসআই আব্দুল আলিমের নেতৃত্বে পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে।

স্থানীয় ইউপি সদস্য হাশেম মেম্বার জানান, তার ছেলে জালাল আহম্মেদ হামলার সাথে জড়িত নয়।