• আজঃ শুক্রবার, ১৩ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ২৭শে নভেম্বর, ২০২০ ইং

বৃষ্টির পানিতে টইটুম্বুর রংপুর নগরী দুর্গতদের মাঝে খাবার বিতরন

গতকাল শনিবার রাত ১০ টা থেকে আজ সকাল ১১ টা অবধি রংপুরে ৪৩৩ মি.মি. বৃষ্টিপাত রেকর্ডল করেছেন বলে রংপুর অবহাওয়া অফিস জানিয়েছে।

রংপুর নগীরর প্রধান প্রধান সড়ক টাউন হল, জিএল রায় রোড, আর.কে.রোড সহ বিভিন্ন সড়ক পানির নিচে তলিয়ে গেছে । এছাড়াও কামার পাড়া, তাজহাট,কামাল কাছনা,কেরানী পাড়া, কোতোয়ালি থানা, মুলাটোল,হাবিব নগর, পূর্ব খাসবাগ,বাবুখা, স্টেশন রোড,মেডিকেল মোড়, মডার্ণ, মাহিগন্জ, কেরানী পাড়া,মাস্টার পাড়া,জুম্মা পাড়া সহ সিটি কর্পোরেশনের বেশিরভাগ এলাকাই পানির নিচে। অনেকের বসতবাড়িতে পানি ওঠার কারণে সাধারণ মানুষ কষ্ট ও দুর্বিষহ জীবনযাপন করছে।

রংপুর শহরকে ধরে রাখা শ্যামা সুন্দরী খাল পানিতে টইটুম্বুর। সাংস্কৃতিক কেন্দ্র টাউন হল পানিতে আবদ্ধ। পুলিশ লাইন্সের সামনের সড়কে পানি জমে থাকার কারণে যানবাহন চলাচল বিঘ্ন ঘটছে। কোতয়ালী থানায় অনেক পুলিশের গাড়ি পানির নিচে।

জলবদ্ধতা নিরসনে সিটি কর্পোরেশন এবং ফায়ার সার্ভিস কাজ করছে। ভুক্তোভোগী মানুষ এই জলাবদ্ধতার কারণ হিসেবে অপরিকল্পিত ড্রেনেজ ব্যাবস্থাকে দায়ী করে সিটি কর্পোরেশনের সমালোচনা করেন। অতিসত্বর সুন্দর পরিচ্ছন্ন ও পানি নিষ্কাশনের ব্যবস্থা অগ্রাধীকার রেখে কাজ করার পরামর্শ দেন রংপুর জেলার সুশীল সমাজ ও সাধারণ জনগণ।

উল্লেখ্য খাবারের সংকট হওয়ায় স্টেশন রোডের পানিতে তলিয়ে যাওয়া ৫ শত মানুষের মাঝে রান্না করা খাবার বিতরণ করেন সাফল্য সাহিত্য সংস্কৃতি পরিবার বাংলাদেশ, মানবতার কল্যাণ ফাউন্ডেশন রংপুর বিভাগ ও জেলা কমিটি,এবং ডাঃ হারুন স্মৃতি পাঠাগার বিতরণ করেন মানবতার কল্যাণ ফাউন্ডেশন রংপুর বিভাগের সভাপতি,কবি,লেখক সাংবাদিক নাসরিন নাজ।