• আজঃ মঙ্গলবার, ১৪ই আশ্বিন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ২৯শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ ইং

এই সংকটকালে প্রবাসীদের করণীয়: ডাঃ আয়েশা পারভীন

আমি ডাঃ আয়েশা পারভীন, বর্তমানে হামাদ মেডিকেল কর্পোরেশনের জরুরি বিভাগে কর্মরত আছি। আমি কভিড ১৯ নিয়ে কিছু ব্যক্তিগত অনুভূতি এবং পরামর্শ শেয়ার করতে চাই কাতারে থাকা আমার বাংলাদেশী ভাই-বোনদের সাথে।

গত এক মাস ধরে কাতার বিশ্ব মহামারী কভিড 19-এর পরিস্থিতির মোকাবেলা করছে। কাতার সরকার এই সঙ্কট কাটিয়ে উঠতে বিশাল উদ্যোগ নিয়েছে এবং নাগরিক এবং প্রবাসী উভয়কেই সমানভাবে সমর্থন করছে।

আমি নিশ্চিত যে আপনারা সবাই এই সম্পর্কে ভাল জানেন এবং আমি এ সম্পর্কে খুব বেশি কথা বলব না।

আসুন আমরা এই পয়েন্টে আসি যে ভাইরাসের বিরুদ্ধে লড়াই করার জন্য আমরা বাংলাদেশীরা কী করছি।

হামাদ হাসপাতালে ফ্রন্টলাইন চিকিত্সক হিসেবে আমি অনেক কোভিড পজিটিভ রোগী দেখছি এবং এর মধ্যে বাংলাদেশীরা একটি অনেক ক্ষতিগ্রস্থ সম্প্রদায়। এর পিছনে কারণ কী? কেন আমরা এতটা ক্ষতিগ্রস্থ হচ্ছি?

আক্রান্ত রোগীদের সাথে কথা বলার পর আমি যে একটি প্রধান কারণ পেয়েছি তা হল তারা ঘরে বসে ছিলেন না। তারা একটু ঘুরাঘুরি করতে বা ধূমপান করতে বা অন্যের সাথে আলাপ আলোচনা করতে বেরিয়েছিলেন। তারা বাড়িতে বিরক্ত বোধ করছিলেন।

ফলস্বরূপ যখন এক ব্যক্তি ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে, তিনি ঘরের অন্য সদস্যদের বা রুম সঙ্গী দের আক্রান্ত করেছেন। এবং আক্রান্তদের সংখ্যা এভাবেই বাড়তে থাকে।

সুতরাং আমার সবার কাছে প্রশ্ন – আমরা কী আমাদের নিজ নিজ বাড়িতে থেকে সংক্রামিত হওয়ার ঝুঁকি রোধ করতে পারি না? এতে লাভ আমাদের নিজের ই এবং আমাদের প্রিয় পরিবারের যাদের ছেড়ে আমরা এখানে কাজ করতে এসেছি ।এবার একটু আমার প্রেক্ষাপট থেকে বলি।

আমি ভাইরাস সংক্রামিত রোগীদের ইনটুবেট করে ভেন্টিলেটর এ কানেকট করেছি। অনেক সময় দেখা গেছে তার এই ক্রিটিকাল অবস্থার আলোচনা করার জন্যে কোনো পরিবার সদস্য কাছে নেয়।

সুতরাং এটি আমার আন্তরিক অনুরোধ – দয়া করে বাড়িতে থাকুন, সমাজিক দূরত্ব বজায় চলুন এবং এমওপিএইচ দ্বারা উল্লিখিত সমস্ত সতর্কতা অবলম্বন করুন।

আমাদের ছোট ছোট পদক্ষেপ একটি বিশাল পার্থক্য করতে পারে। আপনার যদি জ্বর / কাশি / শ্বাসকষ্টের লক্ষণ থাকে তবে 16000 নম্বরে কল করুন এবং তাদের পরামর্শ নিন।

আমি আশা করি আমার বাংলাদেশী ভাই-বোনেরা আমার অনুরোধটি রাখবেন এবং নিরাপদে থাকবেন।
আপনার সময়ের জন্য ধন্যবাদ এবং আল্লাহ আমাদের সকলকে নিরাপদে রাখবেন এই কামনা করছি।
আসসালামু আলাইকুম ওয়া রাহমাতুল্লাহি ওয়া বারাকাতু।