• আজঃ মঙ্গলবার, ৫ই কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ২০শে অক্টোবর, ২০২০ ইং

শেরপুরে সবজি ক্ষেতের সাথে এ কেমন শত্রুতা

শেরপুরে পূর্ব শত্রুতার জের ধরে কানু মিয়া নামে এক কৃষকের আবাদকৃত সবজি ক্ষেতের লাউ ও চিচিঙ্গার গাছ কেটে দেয়ার অভিযোগ ওঠেছে প্রতিপক্ষের লোকজনের বিরুদ্ধে।

বুধবার (১৪ অক্টোবর) ভোরে সদর উপজেলার চরপক্ষীমারী ইউনিয়নের সাতপাকিয়া গ্রামে ওই ঘটনা ঘটে। এতে প্রায় সাড়ে ৫ লক্ষ টাকার ক্ষয়-ক্ষতি হয়েছে বলে জানিয়েছেন ভুক্তভোগী কৃষক। ওই ঘটনায় ৩ জনকে স্ব-নামেসহ অজ্ঞাতনামা আরও ৬/৭ জনের বিরুদ্ধে সদর থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন ক্ষতিগ্রস্ত কৃষক কানু মিয়া।

অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, স্থানীয় সিরাজুল ইসলামের ছেলে কৃষক কানু মিয়া প্রতি বছরের ন্যায় এবারও প্রায় ১০ কাঠা জমিতে লাউ ও চিচিঙ্গার আবাদ করেছিলেন। এতে জমি চাষ, সার-বীজ ও মজুরীসহ গত ৬ মাসে তার প্রায় দেড় লক্ষ টাকা খরচ হয়েছে। ফলনও হয়েছিল বেশ ভালো। দু’দিন আগে প্রায় ১১ হাজার টাকার লাউ তুলে বিক্রিও করেছিলেন। কিন্তু বুধবার ভোরে পূর্বশত্রুতার জের ধরে একই গ্রামের হাসেন আলীর ছেলে লাভলু মিয়া এবং তার ২ ছেলে আরিফ মিয়া ও মিজনা মিয়াসহ বেশ কয়েকজন দুর্বৃত্ত শত্রুতাবশতঃ কৃষক কানু মিয়ার লাউ ক্ষেতের প্রায় সবগুলো গাছের গোড়া কেটে দেয়। সেইসাথে চিচিঙ্গা ক্ষেতের গাছ উপড়ে ফেলে এবং মাচা ভেঙে ফেলে।

কৃষক কানু মিয়া জানান, তারা আমাকে এর আগেও ক্ষতি করার হুমকি দিয়েছিল। ওই পূর্ব শত্রুতার জের ধরে তারা আমার জমির ফসল নষ্ট করেছে। এখন আমার পথে বসার জোগার হয়েছে। আমি এর সুষ্ঠু বিচার চাই। তিনি কান্নাজড়িত কণ্ঠে বলেন, আমার ক্ষেতের ফসলের সাথে তাদের এ কেমন শত্রুতা?

চরপক্ষীমারী ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আকবর আলী জানান, এ এলাকাতে আগেও এ ধরনের ঘটনা ঘটেছে। কাজটি যে বা যারাই করুক আমি এর তীব্র নিন্দা জানাই। সেইসাথে দ্রুত এর সুষ্ঠু বিচার দাবি করছি।

এ ব্যাপারে সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ আব্দুল্লাহ আল মামুন জানান, ওই ঘটনায় অভিযোগ পেয়েছি। ঘটনার তদন্তসাপেক্ষে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।