• আজঃ বৃহস্পতিবার, ৭ই কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ২২শে অক্টোবর, ২০২০ ইং

শিমুলিয়া ঘাটে ফের ভাঙ্গন

মুন্সীগঞ্জের লৌহজং উপজেলার শিমুলিয়া ফেরি ঘাট এলাকায় আবার ভাঙ্গন দেখা দিয়েছে। শুক্রবার (১১ সেপ্টেম্বর) রাত সাড়ে ৯ দিকে শিমুলিয়া ৩ নং রো রো ফেরি ঘাটের দেড় থেকে দুইশত মিটার অদুরেই পদ্মা হোটেল নামের একটি প্রতিষ্ঠানসহ বেশকিছু এলাকা নদীগর্ভে বিলিন হয়ে যায়। হুমকিতে রয়েছে রো রো ফেরি ঘাটটি। তবে শনিবার সকাল থেকে ভাঙ্গন এলাকায় জিও ব্যাগ ফেলা হচ্ছে।

শিমুলিয়া ঘাটস্থ বিআইডব্লিউটিসির এসিস্ট্যান্ট ম্যানেজার প্রফুল্ল চৌহান জানান, পদ্মায় প্রবল স্রোতের তোরে রাত ৮টা থেকে শিমুলিয়া প্রান্তে ভাঙ্গন শুরু হয়। তবে এখনো রো রো ঘাটের কোন ক্ষতি হয় নি। ৩ নং ঘাটের প্রায় দেড় থেকে দুইশত ফিট দূরে বিআইডব্লিউটিসির একটি ওয়ার্কশপ রয়েছে। তার পেছনে পদ্মা নামের একটি নতুন হোটেল তৈরী করা হয়। সেই হোটেলটি সাড়ে ৯টার দিকে নদীতে বিলিন হয়ে যায়।

এমতাবস্থায় রো রো ফেরি ঘাটের কোন ক্ষতি না হলেও ভাঙ্গনের হুমকির মুখে রয়েছে। তবে রাতের অন্ধকারের কারণে কি পরিমাণ ভেঙ্গেছে বা কি পরিমাণ ফাটল দেখা দিয়েছে তা নিরুপণ করা যায় নি।তিনি আরো বলেন, নাব্যতা সংকটের কারণে বন্ধ থাকার ৮ দিন পর শুক্রবার বিকেলে ৩টি ফেরি পরিক্ষামুলক কাঁঠালবাড়ির উদ্দেশ্যে ছেড়ে যায়। শনিবার পরিক্ষামূলক ভাবে দুটি ফেরি শিমুলিয়া ঘাট থেকে কাঁঠালবাড়ির উদ্দেশ্যে ছেড়ে যায়।

এদিকে, জুলাই ও আগষ্ট মাসে দুই দফা পদ্মার ভাঙ্গনে শিমুলিয়া ৩ ও ৪ নং ফেরিঘাট দুটির পল্টুলের এপ্রোচ সড়কসহ প্রায় সাড়ে ৭ একর ভূমির ধস হয়। পুনরায় তা সংস্কার করে আবার ফেরি চলাচল স্বাভাবিক করা হয়।