• আজঃ মঙ্গলবার, ৫ই কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ২০শে অক্টোবর, ২০২০ ইং

আসন্ন পৌরসভা নির্বাচনে জনপ্রিয়তার শীর্ষে মিজান-সুজন

আসন্ন পৌরসভা নির্বাচনকে সামনে রেখে সম্ভাব্য প্রার্থীদের দৌড় ঝাপ শুরু। কেউ কেউ মাঠে না থাকলেও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুক অনলাইনে নিজেকে প্রার্থী ঘোষণা দিয়ে করছে প্রচার-প্রচারনা। আবার কেউ মাঠে নেমে পৌর এলাকার অসহায় দরিদ্র মানুষের পাশে থেকে মসজিদ মাদ্রাসা,মন্দির গীর্জা, রাস্তা ঘাট, কাঁচা রাস্তায় ইট বালু দিয়ে সংস্করণ করা সহ বিভিন্ন উন্নয়নমুখী প্রতিশ্রতি মূলক কাজকর্ম করে নিজেকে প্রার্থী হিসেবে জানান দিচ্ছে।

এতে করে প্রতিবারের ন্যায় এবার প্রার্থীদের প্রচার-প্রচারনার ধরনটা একটু আলাদা প্রন্থায় হওয়ায় জনসাধারণের মধ্যে দেখা দিয়েছে এখন থেকেই নির্বাচনী আমেজ। পৌর এলাকার বিভিন্ন ওয়ার্ড ঘুরে দেখা গেছে, আসন্ন পৌরসভা নির্বাচনকে সামনে রেখে আওয়ামী লীগ ও বিএনপি থেকে একাধিক প্রার্থীর নাম শোনা গেলেও এখন পর্যন্ত মাঠে ঘাটে দেখা যাচ্ছে আওয়ামী লীগ থেকে আবুল বাসার সুজন ও বিএনপি থেকে বর্তমান মেয়র মিজানুর রহমান মিজান।

তারা দুইজন দুই পন্থায় নিজেকে মেয়র প্রার্থী হিসেবে জানান দিতে মাঠে ঘাটে প্রচার-প্রচারনা চালাচ্ছে। এছাড়াও আওয়ামী লীগ থেকে মনোনয়ন চেয়ে হালকা পাতলা প্রচার – প্রচারনা চালাতে দেখা যাচ্ছে, তানোর পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি ইমরুল হক, সাংগঠনিক সম্পাদক ওয়াজির হাসান প্রতাপ, পৌর যুবলীগের সভাপতি রাজিব সরকার হিরো, সাবেক উপজেলা ছাত্র লীগের সভাপতি হাসানুল কবির রবিনকে।

তবে এখন পর্যন্ত তাদের নির্বাচনী প্রচার মাঠে তেমন একটা দেখা যায়নি। অন্যদিকে বিএনপি থেকে বর্তমান মেয়র মিজানুর রহমান মিজান আবারো ভোট করতে কৌশলে চালাচ্ছেন প্রচার প্রচারনা। তবে এবার বিএনপি থেকে মনোনয়ন চেয়ে প্রচারে মাঠে নেমেছে উপজেলা ছাত্র দলের সাবেক সভাপতি আব্দুল মালেক।

তানোর পৌর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আবুল কালাম আজাদ প্রদীপ সরকার বলেন, দলের মনোনয়ন সবাই চাইতে পারে এটা সবার অধিকার, চাইলেই মনোনয়ন পাওয়া যায়না,মনোনয়ন সেই ব্যক্তিকেই দেয়া হবে যার মাঠ পর্যায়ে জনপ্রিয়তা থাকবে। আর কে মাঠে ঘাটে কাজ করছে কাকে দিলে আওয়ামী লীগের প্রার্থী জয়ী করা সম্ভব তা ইতিমধ্যে আমাদের এমপির কাছে রিপোর্ট আছে। এমপি যাকেই মনোনয়ন দিবে সেই হবে নৌকার যোগ্য প্রার্থী বলে তিনি জানান।

তানোর পৌর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আরশাদ আলী বলেন, দেশে বিএনপি কে আর সুষ্ঠ স্বাভাবিক ভোট করতে দেয়া হবেনা,তবুও আমরা দলকে চাঙ্গা করতে পৌরসভা নির্বাচনে প্রার্থী দিব। তবে প্রার্থী কাকে দেয়া হবে সে বিষয়ে তিনি কোন মন্তব্য করতে চায়নি।