• আজঃ সোমবার, ১১ই কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ২৬শে অক্টোবর, ২০২০ ইং

আজ জাতীয় নারী নির্যাতন প্রতিরোধ দিবস

২৪ আগস্ট ‘জাতীয় নারী নির্যাতন প্রতিরোধ’ দিবস। ১৯৯৫ সালের এই দিনে দিনাজপুরের কিশোরী ইয়াসমিনকে কয়েকজন পুলিশ সদস্য ধর্ষণের পর হত্যা করে। এ ঘটনায় বিক্ষোভে ফেটে পড়ে দিনাজপুরের সর্বস্তরের মানুষ। প্রতিবাদের ঝড় উঠে সারাদেশে। সেই থেকে নারী নির্যাতনের বিরুদ্ধে সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহ্বান জানিয়ে প্রতিবছর দিবসটি পালিত হচ্ছে ।

ইয়াসমিন হত্যার ঘটনায় তীব্র আন্দোলনের মুখে ওই পুলিশ সদস্যদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়। ১৯৯৭ সালের ৩১ আগস্ট ওই মামলার রায়ও হয়। আর ইয়াসমিন ট্রাজেডীর আট বছর পর ২০০৪ সালের সেপ্টেম্বরে ওই রায় অনুসারে দোষীদের মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করা হয়।

যেখানে নারী নির্যাতন প্রতিরোধ হবে সেখানে আরেক নির্যাতন দেখছি –
কক্সবাজারের চকরিয়ায় মা ও তরুণী মেয়েকে ‘গরু চোর’ সন্দেহে রশি বেঁধে নির্মমভাবে পিটানো হয়েছে। পরে কোমরে রশি বেঁধে দুই নারীকে প্রকাশ্য দিবালোকে সড়কে হেটে নিয়ে যাওয়া হয় স্থানীয় চেয়ারম্যানের কার্যালয়ে । সেখানে ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি ও হারবাং ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মিরানুল ইসলাম নিজেই তাদের মারপিট করেছে বলে অভিযোগ উঠেছে ।

এই ঘটনায় তিন সদস্যবিশিষ্ট তদন্ত কমিটি গঠন করেছে কক্সবাজার জেলা প্রশাসন। রবিবার (২৩ আগস্ট) সন্ধ্যা ৬টার দিকে কক্সবাজারের জেলা প্রশাসক মো. কামাল হোসেনের নির্দেশে এ তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়। এ তথ্যের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন চকরিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সৈয়দ শামসুল তাবরীজ।

তদন্ত কমিটির প্রধান করা হয়েছে কক্সবাজার জেলা প্রশাসনের স্থানীয় সরকার বিভাগের পরিচালক (উপ-সচিব) শ্রাবন্তী রায়কে। কমিটির অপর দুই সদস্য হচ্ছেন চকরিয়ার এসিল্যান্ড ও হারবাং ইউনিয়নের একজন ট্যাগ অফিসার ।